ময়মনসিংহ - ১০ই আগস্ট, ২০২২ || ২৬শে শ্রাবণ, ১৪২৯

শিরোনাম

বিশ্বের ত্রিশ লাখ মোবাইল ব্যবহারকারী ঝুঁকিতে, সতর্কতা জারি

বিশ্বের ৩০ লাখ অ্যান্ড্রয়েড ফোন ব্যবহারকারীর তথ্য ঝুঁকিতে রয়েছে বলে জানিয়েছেন চেক পয়েন্ট সিকিউরিটির রিসার্চাররা

বিশ্বের ৩০ লাখ অ্যান্ড্রয়েড ফোন ব্যবহারকারীর তথ্য ঝুঁকিতে রয়েছে বলে জানিয়েছেন চেক পয়েন্ট সিকিউরিটির রিসার্চাররা। তাদের দাবি মোবাইল ফোনে ব্যবহৃত কোয়ালকম চিপের কারণে এই ঝুঁকি তৈরি হয়েছে। তারা কোয়ালকমের ডিজিটাল সিগন্যাল প্রসেসর চিপে (ডিসিপি) ৪০০টি ত্রুটি খুঁজে পেয়েছেন।
জানা যায়, বাজারে ব্যবহৃত অ্যান্ড্রয়েড স্মার্টফোনের মধ্যে ৪০ শতাংশ স্মার্টফোনে কোয়ালকম চিপ (Qualcomm) ব্যবহৃত হয়। এ চিপ সব দামের ফোনের মধ্যেই পাওয়া যায়। শুধু এটা নয়, গুগল, স্যামসাং, এলজি, শাওমিসহ আরও বিভিন্ন প্রিমিয়াম স্মার্টফোনে এই কোয়ালকম চিপ ব্যবহার হয়ে থাকে।
চেক পয়েন্টের রিসার্চাররা DCP চিপ টেস্ট করেছিল আর তাতে ত্রুটিযুক্ত ৪০০টি কোড পিস খুঁজে পেয়েছে। এ ত্রুটিগুলোর জন্য হ্যাকাররা বিনা ইউজার ইন্টারাঅ্যাকশন ছাড়াই যেকোনো স্মার্টফোনের সাহায্যে নজরদারি করতে পারে।
চেক পয়েন্টের রিসার্চাররা আরও জানিয়েছেন, উল্লিখিত ত্রুটিগুলোর সাহায্যে হ্যাকাররা ইউজারের ফোনে থাকা ছবি, ভিডিও, কল রেকর্ডিং, রিয়েল টাইম মাইক্রোফোন ডেটা, জিপিএস আর লোকেশনের ডেটা অ্যাকসেস পেয়ে যায়।
এই ৪০০টি ত্রুটির কারণে ম্যালিসিয়াস অ্যাপ ফোনের কল রেকর্ডিং করতে পারে, আবার মাইক্রোফোনের সাহায্যে ইউজারদের কথাবার্তাও শুনতে পারে। এছাড়াও হ্যাকাররা সার্ভিস অ্যাটাকের সাহায্যে ফোনকে ফ্রিজও করতে পারে।
কোয়ালকমের এ ত্রুটিগুলো সামনে আসার পরে সতর্কতা জারি করা হয়েছে। ফোন নির্মাতারা নতুন আপডেট দিয়ে এ ত্রুটিগুলোকে দূর করতে পারবে বলে জানানো হয়েছে।
উল্লেখ্য, চেক পয়েন্ট সিকিউরিটির রিসার্চাররা বিভিন্ন সফটওয়ারের ত্রুটি নিয়ে কাজ করে থাকেন। একই সঙ্গে তারা গ্রাহকদের নিরাপদে রাখতে কাজ করে বলে জানানো হয়েছে।

এই বিভাগের আরও খবর